হোয়াটসঅ্যাপেই গ্রাহক সেবা দিচ্ছে যেসব ব্যাংক

0
WHATSAPP BANKING SERVICE.jpg

নিরাপত্তা বিবেচনায় ও বিনা খরচে যোগাযোগের জন্য এখন দেশের বড় একটা জনগোষ্ঠী হোয়াটসঅ্যাপের ওপর নির্ভরশীল। এর মাধ্যমে ইন্টারনেট ব্যবহার করে মোবাইলের মতো কথা বলা যাচ্ছে, একইভাবে খুদে বার্তাও পাঠানো যাচ্ছে অনায়াসে। এতে কোনো বাড়তি খরচও নেই, যোগাযোগও থাকছে অনেকটা গোপন।

একইভাবে ব্যাংকের গ্রাহকের তথ্য নিরাপদে পৌঁছে দিতে ও ছোট লেনদেনে বিশ্বের অনেক দেশে হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার শুরু হয়েছে। বিশ্বের যেকোনো স্থান থেকে এই সেবা মিলছে। বাংলাদেশেরও চারটি ব্যাংক এই সেবা দেওয়া শুরু করেছে। ব্যাংক চারটি হলো ঢাকা, দ্য সিটি, ইসলামী এবং সরকারি খাতের বেসিক ব্যাংক।

ব্যাংকের এই সেবায় গ্রাহকদের অতিরিক্ত কোনো মাশুল গুনতে হচ্ছে না। আর হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে পুরো ব্যাংকিং সেবা সম্পন্ন হচ্ছে প্রযুক্তি ব্যবহার করে।

হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে ব্যাংকিং সেবার প্রথম পর্যায়ে ব্যাংকের গ্রাহকেরা শুধু নিজের হিসাবের বিভিন্ন তথ্য জানতে পারছেন। এই সেবা নিতে গ্রাহকদের নতুন করে নিবন্ধন করতে হচ্ছে। তবে এ জন্য শাখায় যাওয়ার কোনো প্রয়োজন পড়ছে না। গ্রাহক নিজেই নিজের নিবন্ধন সম্পন্ন করতে পারছেন। দ্বিতীয় পর্যায়ে ব্যাংকগুলো ছোট ছোট লেনদেন, বিশেষ করে পরিষেবা বিল, মোবাইল রিচার্জ, পাসপোর্ট ফি করতে পারছেন।

এ ছাড়া নিজ ব্যাংকের অন্য হিসাবে টাকা পাঠানো, ডিপিএসের টাকা জমা করা যাচ্ছে। তৃতীয় পর্যায়ে ব্যাংকগুলো অন্য ব্যাংকে টাকা পাঠানোর সুবিধা দিচ্ছে। মূলত হিসাব ও লেনদেনের নিরাপত্তা বিবেচনায় ব্যাংকগুলো ধাপে ধাপে এই সেবা চালু করছে।

জানা গেছে, সময়ের চাহিদার সঙ্গে ব্যাংকগুলো অনলাইন ও কার্ডভিত্তিক নতুন নতুন সেবা চালু করে আসছে। এখন ব্যাংকগুলো ঝুঁকছে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে বিভিন্ন সেবায়। বাংলাদেশে প্রথম ঢাকা ব্যাংক গ্রাহকদের জন্য এই সেবা নিয়ে আসে। ব্যাংকটির গ্রাহকেরা +৮৮০১৩১৮২০৩৩৮২ নম্বরের মাধ্যমে সেবা পাচ্ছেন। প্রথমে চালু করায় ব্যাংকটি এই সেবায় বেশ এগিয়েছে। ঢাকা ব্যাংকের গ্রাহকেরা এখন হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে নিজের হিসাবের বিভিন্ন তথ্য জানার পাশাপাশি অন্য ব্যাংকেও টাকা পাঠাতে পারছেন। পাশাপাশি কার্ডের টাকা জমা দেওয়া, পাসপোর্ট ফিসহ নানা সুবিধা তো রয়েছেই।

এরপর সেবাটি নিয়ে এসেছে বেসরকারি খাতের দি সিটি ব্যাংক। ব্যাংকটির গ্রাহকেরা +৮৮০১৭০০৭১০১৪৪ নম্বরের মাধ্যমে বিভিন্ন তথ্য সেবা পাচ্ছেন। প্রায় ৩৫ হাজার গ্রাহক সেবা নিতে নিবন্ধন করেছেন। দৈনিক এক হাজারের বেশি গ্রাহক প্রতিদিন হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে তথ্য সেবা নিচ্ছেন।

এ নিয়ে সিটি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসরুর আরেফিন বলেন, সিটি ব্যাংকের গ্রাহকেরা ক্রেডিট কার্ড এবং রিটেইল ব্যাংকিং গ্রাহকেরা যেকোনো জায়গা থেকে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে কিছু সেবা পাচ্ছে। গ্রাহকের প্রয়োজন ও সুবিধার কথা বিবেচনায় রেখে এ বছরই আমরা হোয়াটসঅ্যাপ ব্যাংকিংয়ের সেবার আওতা বাড়াব। নতুন যুক্ত হওয়া সেবার তালিকায় রয়েছে মুঠোফোন রিচার্জ, বিভিন্ন পরিষেবার বিল পরিশোধ, সিটি ব্যাংকের অন্য হিসাবের টাকা স্থানান্তর, ঋণ হিসাবের তথ্য পাওয়ার সুবিধা। পরবর্তী সময়ে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে অন্য ব্যাংকেও টাকা স্থানান্তর করা যাবে।

নতুন করে এই সেবা চালু করেছে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড (আইবিবিএল)। ব্যাংকটির গ্রাহকেরা +৮৮০১৩১৩০১৬২৫৯ নম্বরের মাধ্যমে বিশ্বের যেকোনো স্থান থেকে সেবা নিতে পারছেন। বিভিন্ন তথ্য সেবার পাশাপাশি ইসলামী ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ডের বিল পরিশোধ করা যাচ্ছে।

ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুহাম্মদ মুনিরুল মওলা বলেন, ‘আমরা ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে সেবা ছড়িয়ে দিতে মনোযোগ দিচ্ছি। এ জন্য সব প্ল্যাটফর্ম প্রস্তুত করা হয়েছে।’

সবশেষ হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহার করে সেবা দেওয়া শুরু করেছে বেসিক ব্যাংক। ব্যাংকটির গ্রাহকেরা +৮৮০১৭১৩২৫৭৪১৪ নম্বরের মাধ্যমে বিশ্বের যেকোনো স্থান থেকে ২৪ ঘণ্টা ব্যাংকিং সেবা গ্রহণ করতে পারছেন।

বেসিক ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আনিসুর রহমান বলেন, গ্রাহকেরা যাতে নিজের হিসাবের তথ্য ঘরে বসে পান, এ জন্য এই সেবা চালু করা হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ
হোয়াটসঅ্যাপ ব্যাংকিং সেবা চালু করল বেসিক ব্যাংক
ঘরে বসে যত ব্যাংকিং সেবা দিচ্ছে ইসলামী ব্যাংক

Leave a Reply