স্মার্টফোন: ভাঁজ করে রাখা যাবে পকেটে আর হাওয়ায় হবে চার্জ!

টিআইবিঃ আধুনিক প্রযুক্তির এই ফোনে থাকছে ৭.৫ ইঞ্চির এলইডি স্ক্রিন, যা কাগজের মতোই পাতলা। যাকে সহজেই দুই থেকে তিনটি ভাঁজে মুড়ে ফেলা যাবে। পাতলা হলেও স্ক্রিনের কাচ হবে যথেষ্ট মজবুত। শুধু তা-ই নয়, ফোন ভাঁজ করে রাখা হলেও সম্পূর্ণ খোলার পর ভাঁজের জন্য কোনও রেখা বা দাগ আলাদা করে বোঝা যাবে না।

টেকনো ইনফো বিডি‘র প্রিয় পাঠক: প্রযুক্তি, ব্যাংকিং ও চাকরির গুরুত্বপূর্ণ খবরের আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ টেকনো ইনফো বিডি তে লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন।

স্যামসাং-এর জানানো তথ্য অনুযায়ী, এই ফোনের র‌্যাম হবে ৬ জিবি। ইন্টারনাল মেমোরি ১২৮ জিবি-র আশেপাশে রাখা হবে, যা ২৫৬ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে। তবে এখনই এই বিষয়ে কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়নি সংস্থা। নয়া প্রযুক্তিতে যতটা উন্নতমানের স্টোরেজ বানানো সম্ভব, ততটাই রাখা হবে এই ফোনে।

কোয়াড কোর প্রসেসর সম্বলিত এই ফোনের সামনের দিকের ক্যামেরা ৮ মেগাপিক্সেলের। পিছনের ক্যামেরাটি ১৮ মেগাপিক্সেল ক্ষমতাসম্পন্ন। যে কোনও উন্নত মানের ক্যামেরায় তোলা ছবির সঙ্গে টক্কর দিতে পারবে এই ফোনে তোলা ছবিও।

স্যামস্যাং-এর দাবি, চার হাজার মিলি অ্যাম্পিয়ার ক্ষমতাসম্পন্ন গ্যালাক্সি টেন-এর ব্যাটারি মৃদু বাতাসের সংস্পর্শে এলেই চার্জ হতে শুরু করবে। অতএব, রাস্তাঘাটে চার্জার বা পাওয়ার ব্যাঙ্ক নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর কোনও প্রয়োজনই পড়বে না।

দুর্দান্ত সব বৈশিষ্ট্য সংক্রান্ত এই ফোন বাজারে আসতে চলেছে ২০১৮-র অগস্টেই। চূড়ান্ত দাম ধার্য না হলেও কোম্পানির তরফ থেকে জানানো হয়েছে, আপাতত এর মূল্য ধার্য হয়েছে ভারতীয় ৩৯,৯৯০ টাকা।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button