ব্যাংকে ডলারের দাম বেড়ে আবারও ১০৭ টাকা ছুঁই ছুঁই

ব্যাংকগুলো একে অপরের কাছে ডলার বেচাকেনা শুরু করেছে। এরপরও বাড়ছে ডলারের দাম। আজ বুধবার আন্তব্যাংকে ডলারের বিক্রয় দর বেড়ে হয়েছে ১০৬ টাকা ৯০ পয়সা, যা গতকাল মঙ্গলবার ছিল ১০৬ টাকা ১৫ পয়সা।

টেকনো ইনফো বিডি‘র প্রিয় পাঠক: প্রযুক্তি, ব্যাংকিং ও চাকরির গুরুত্বপূর্ণ খবরের আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ টেকনো ইনফো বিডি তে লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের ওয়েবসাইটে ব্যাংকগুলোর ডলারের কেনাবেচার গড় দাম প্রকাশ করা হয়েছে। এতে বলা হয়, ব্যাংকে ডলারের গড় ক্রয়মূল্য ১০২ টাকা ৩৭ পয়সা, যা গতকাল ছিল ১০১ টাকা ৬৭ পয়সা। আর বিক্রয়মূল্য বেড়ে হয়েছে ১০৬ টাকা ৯০ পয়সা, যা গতকাল ছিল ১০৬ টাকা ১৫ পয়সা। বাংলাদেশ ব্যাংক গতকাল ডলারের আন্তব্যাংক লেনদেনের মূল্য বদলে ফেলে।

তবে এটি কেন্দ্রীয় ব্যাংকের দর নয়, ব্যাংকগুলোর নিজেদের মধ্যে লেনদেন করা ডলারের দাম এটি। ব্যাংকগুলো যে দামে ডলার কেনাবেচা করে, সেটিকে আন্তব্যাংক দাম বলা হচ্ছে। এত দিন কেন্দ্রীয় ব্যাংক যে দামে ডলার কেনাবেচা করত, সেটি আন্তব্যাংক দর হিসেবে উল্লেখ করা হতো। এত দিন সেই দামই ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে আসছিল বাংলাদেশ ব্যাংক।

কিন্তু গতকাল হঠাৎ এ দামে পরিবর্তন আনে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। তবে রিজার্ভ থেকে বাংলাদেশ ব্যাংক আগের দামেই ডলার বিক্রি করছে। গতকাল ডলার বিক্রি করা হয়েছে ৯৬ টাকা দরে।

আরও দেখুন: নির্ধারিত দামে ডলার বিক্রি শুরু হয়নি, আরও কমল টাকার মান

বাংলাদেশ ব্যাংকের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, টাকা ও ডলারের বিনিময়মূল্য ব্যাংকগুলো নির্ধারণ করেছে। জোগান ও চাহিদা এবং বাংলাদেশ ফরেন এক্সচেঞ্জ ডিলার অ্যাসোসিয়েশনের (বাফেদা) দামের ভিত্তিতে ডলারের এই দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংক দৈনন্দিন ভিত্তিতে ডলার কেনাবেচার মধ্যে নেই। তবে বাজার বিবেচনায় প্রয়োজন হলে কেনাবেচা করবে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কর্মকর্তারা বলছেন, ব্যাংকগুলো যে দামে ডলার কেনাবেচা করবে, সেটিই হবে আন্তব্যাংক দাম। সেটাই ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে, তবে কেন্দ্রীয় ব্যাংক এই দামে বিক্রি করবে না।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button