করোনায় আক্রান্তদের সহায়তায় বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করেছে এনআরবিসি ব্যাংক

0
121

ব্যাংকিং পেশায় নিয়োজিতদের কাজের ধরণ যেমন আলাদা তেমনি কাজের কঠোরতাও অন্যদের চেয়ে বেশী। এখানকার কাজে মানসিক চাপ থাকে প্রচন্ড। কেন না এ পেশার প্রতি মূহুতের কাজে অর্থের সংযোগ থাকে বিধায় অত্যন্ত সজাগ থাকতে হয় সব সময়। এর মধ্যে করোনা ভাইরাস ব্যাংকারদের আলাদা ভাবে চাপে রেখেছে। প্রতিনিয়ত অগণিত মানুষের সাথে তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করতে হয়।

কিন্তু এই মুহূর্তে এটি তাদের জন্য অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। মানসিক ভাবেও তারা ভীত সন্ত্রস্ত। পেশাগত কারনেই প্রতিদিন কর্মক্ষেত্রে যেতে হচ্ছে, কিন্তু সেখানে নেই পর্যাপ্ত সতর্কতামূলক ব্যবস্থা। তবে কিছু কিছু ব্যাংক ইতিমধ্যেই ভাবতে শুরু করেছে তাদের কর্মীদের নিয়ে। তারা প্রস্তুত হচ্ছেন করোনা ভাইরাস থেকে নিজেদের কর্মীদের বাঁচাতে। সেই সাথে নিশ্চিত করতে চাচ্ছেন ব্যাংকে আসা প্রতিটি গ্রাহক যাতে ঝুকিমুক্ত থাকেন। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সেভাবেই প্রস্তুত হচ্ছে এনআরবিসি ব্যাংক।

কোভিড-১৯ বা করোনা ভাইরাস আক্রান্তদের সহায়তায় কোভিড-১৯ নামে একটি ফান্ড গঠন করেছে এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেড। এই ফান্ড গঠনের জন্য এনআরবিসি ব্যাংকের পরিচালকগণ ৪৫ লাখ টাকা এবং প্রত্যেক কর্মী তাদের একদিনের বেতনের সমপরিমাণ টাকা প্রদান করবেন।

এনআরবিসি ব্যাংকের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, কোভিড-১৯ বা কোরোনাভাইরাস প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় সকল ধরণের পদক্ষেপ নিয়েছে এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেড। প্রধান কার্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগসহ সকল শাখা ও উপশাখায় পর্যাপ্ত মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও হ্যান্ড গ্লাভস সরবরাহ করা হয়েছে এবং যথাশীঘ্রই পিপিই-ও সরবরাহ করা হবে জানিয়েছে তারা। এর পাশাপাশি জরুরী প্রয়োজনে ব্যাংকে আসা গ্রাহকদের স্বাস্থ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য সকল প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

সমাজের স্বহৃদয়বান ব্যাক্তিরাও এনআরবিসি ব্যাংকের যেকোন শাখা/উপশাখায় ‘COVID-19 (CORONAVIRUS) FUND MANAGEMENT ACCOUNT’ শীর্ষক একাউন্ট নম্বর: ০১০১ ৩৬০০০০০০১৪৮-এ এই ফান্ডে অর্থ প্রদান করতে পারবেন। ফান্ডের সমুদ্বয় টাকা জনস্বার্থে স্বচ্ছতার ভিত্তিতে খরচ করা হবে এবং খরচের খাতসমূহের হালনাগাদ বিস্তারিত তথ্য ব্যাংকের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে। পরবর্তীতে এই ফান্ডের অব্যবহৃত অর্থ (যদি থাকে) জনকল্যাণকর কাজে ব্যয় করা হবে। সর্বোপরি, কোভিড-১৯ বা কোরোনাভাইরাস প্রতিরোধে এনআরবিসি ব্যাংক একটি বিশেষ টাস্কফোর্স গঠন করেছে।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশের ব্যাংকের নির্দেশনানুযায়ী এনআরবিসি ব্যাংক করোনাভাইরাস প্রতিরোধে এবং কর্মীদের সুরক্ষায় এরই মধ্যে তাদের দুইভাগে ভাগ হয়ে দুই শিফটে কাজ করার নির্দেশ দিয়েছ এবং যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ব্যাংকিং সেবা দিতে কর্মীদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া গ্রাহকদেরকে ইন্টারনেট ব্যাংকিং অথবা ‘এনআরবিসি প্লানেট অ্যাপ’ ব্যবহার করে ঘরে বসেই ব্যাংকিং করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।