এজেন্ট ব্যাংকিংয়ে আমানত সংগ্রহে ২০১৯ সালে প্রথম ইসলামী ব্যাংক

0

ইসলামী ব্যাংক ২০২০ সালের মধ্যে এজেন্ট আউটলেটের সংখ্যা দ্বিগুণের বেশি করার পরিকল্পনা করেছে। যার মাধ্যমে দেশের পল্লী, পাহাড়, হাওর ও দ্বীপাঞ্চলের মানুষের কাছে ব্যাংকিং সেবা পৌঁছে দেওয়া হবে। পাশাপাশি এসব অঞ্চলের সাধারণ মানুষকে আর্থিক শিক্ষা দেওয়া হবে। তাতে সহজে বিতরণ করা যাবে প্রবাসী আয়।

এ ছাড়া ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চলসহ অন্যান্য যেসব এলাকায় উন্নয়ন কার্যক্রম চলছে, সেখানকার মানুষের দৈনন্দিন লেনদেনকে আরও সহজ করার পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে।

ইসলামী ব্যাংক এজেন্ট ব্যাংকিং কার্যক্রম দ্রুত প্রসারের মাধ্যমে অন্তর্ভুক্তিমূলক অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে। ২০১৯ সালে ৭০৭টি নতুন আউটলেট খােলা হয়েছে। ফলে বর্তমানে আমাদের এজেন্ট আউটলেট বেড়ে হয়েছে ১ হাজার ১৭টি। এরই মধ্যে আমাদের এজেন্ট ব্যাংকিং কার্যক্রমে ৪ লাখ ৬১ হাজার গ্রাহক তৈরি হয়েছে। আমানত জমা হয়েছে ১ হাজার ৬৩০ কোটি টাকা। গত ১৪ জানুয়ারি পর্যন্ত আমানতের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৭৪১ কোটি টাকা।

২০১৮ সালের এজেন্টদের মাধ্যমে প্রবাসী আয় বিতরণ হয় ৩৬৫ কোটি টাকা, ২০১৯ সালে যা বেড়ে হয়েছে ২ হাজার ৪৬১ কোটি টাকা। এজেন্ট ব্যাংকিংয়ে আমানত সংগ্রহের ক্ষেত্রে ২০১৯ সালে ইসলামী ব্যাংকের অবস্থান প্রথম।

সূত্রঃ আবু রেজা মাে. ইয়াহিয়া, ডিএমডি, ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড।

Leave a Reply