টিআইবিঃ আসসালামু আলাইকুম। টেকনো ইনফো বিডিতে আপনাদের সবাইকে স্বাগতম। তথ্য প্রযুক্তির যুগে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম হিসেবে ফেসবুক অন্যতম। ইন্টারনেট ব্যবহার করেন কিন্তু ফেসবুক ব্যবহার করেন না এমন ব্যবহারকারীর সংখ্যা খুবই কম।

সামাজিক যোগাযোগ রক্ষার সাথে সাথে ফেসবুক বিভিন্ন পণ্যের মার্কেটপ্লেস হিসেবে পরিগণিত হচ্ছে। তাই মার্কেটে আপনার অস্তিত্ব ঘোষণা, নির্দিষ্ট ক্রেতা খুঁজে বের করা, ওয়েবসাইটে ট্রাফিক বৃদ্ধিসহ বিভিন্ন কারণে ফেসবুক পেজ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আপনার ব্যবসাকে আরো বেশি বিশ্বস্ত করতে পেজ ভেরিফিকেশন পদ্ধতি গত অক্টোবর মাস থেকে চালু হয়েছে। প্রাথমিকভাবে যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, যুক্তরাজ্য এবং নিউজিল্যান্ডে ফেসবুক পেজ ভেরিফিকেশন চালু করা হয়েছে। তবে অতি শীঘ্রই ভেরিফিকেশন পদ্ধতি সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে। আমাদের আজকের পোস্টে দেখাবো কিভাবে একটি ফেসবুক পেজ ভেরিফাই করবেন।

ফেসবুক পেজ কেন ভেরিফাই করবেন?

আমার মতে যখন কোন সুবিধা আপনার সামনে হাজির হবে তখন সেটা গ্রহণ করাই বুদ্ধিমানের কাজ। আর এক্ষেত্রে ফেসবুকে যখন পেজ ভেরিফিকেশন অপশন রয়েছে তাহলে আর দেরি করবেন কেন আজই ভেরিফিকেশন করে নিন আপনার ফেসবুক পেজ। অনেক সময় আপনার একই পেজের নাম দিয়ে অনেক ধরনের ফেসবুক পেজ খোলা হতে পারে। সেক্ষেত্রে আপনার ক্রেতা আপনার পেজটি খুঁজে বের করতে সমস্যার সম্মুখীন হতে পারে।

ফেসবুকে প্রায় ৪৫ মিলিয়ন ব্যবসায়িক পেজ আছে। নিশ্চিতভাবে বলা যায় অসংখ্য নকল পেজও রয়েছে। গবেষনায় দেখা গেছে ভেরিফাইড ফেসবুক পেজ সার্চ ফলাফলে আগে দেখায়। তাই ফেসবুক পেজ ভেরিফাইড করা অত্যন্ত জরুরি ।

যে পেজগুলো ভেরিফাইভের উপযোগী

ফেসবুক যে কারো যে কোন পেই ভেরিফাই প্রদান করবে না। এর জন্য কিছু শর্ত রয়েছে। যে শর্তগুলো পূরণ করলেই আপনার পেজটি ভেরিফাই করা সম্ভব। আসুন জেনে নেই ফেসবুকে যে পেজগুলো ভেরিফাই করবেন তার যোগ্যতা কি হবে।

  • পরিচিত বা বিখ্যাত ব্যক্তি
  • মিডিয়া ব্যক্তিত্ব
  • রাজনীতিবিদ ব্যক্তিত্ব
  • ক্রীড়া বা সংগীত ব্যক্তিত্ব
  • ব্যবসায়ী (বিভিন্ন গ্লোবাল ব্র্যান্ড)
  • সরকারি কর্মকর্তা

যেভাবে ফেসবুক পেজ ভেরিফাই করবেন

১। আপনি যে ফেসবুক পেজটি ভেরিফাইড করতে চান প্রথমে সেই পেজে প্রবেশ করুন।

২। তারপর পেজ এর মেনু বারের উপরে Setting অপশানে ক্লিক করুন।

৩। এরপর দেখতে পাবেন বাম পাশে General মেনু নামে একটি অপশান আছে সেখানে ক্লিক করুন।

৪। তারপর Verify this Page নামে যে অপশান আছে সেখানে ক্লিক করুন।

৫। Call me Now বাটনে ক্লিক করে আপনার মোবাইল নাম্বারটি দিন।

৬। ভেরিফিকেশন কোডটি আপনার পেজ এ দিন বা সেট করুন।

৭। আপনি চাইলে আপনার প্রয়োজনী কাগজ পত্র দিয়ে ভেরিফিকেশন করতে পারেন।

আপনার পেজে যদি Verify this Page অপশন না পান তাহলে বুঝতে হবে আপনার জন্য Verification প্রযোজ্য নয়।

এটাই হল ফেসবুক পেজ ভেরিফিকেশনের পদ্ধতি। আশা করি পোস্টটি মাধ্যমে আপনারা আপনাদের ফেসবুক পেজ ভেরিফাই করে আপনাদের ব্যবসাকে আরো প্রসারিত করতে পারবেন।

Leave a Reply