আপনার মোবাইলের জন্য উপযুক্ত চার্জার নির্বাচন করবেন কিভাবে?

1
171

টিআইবিঃ কয়েক মাস আগে টিভিতে একটি বিজ্ঞাপন প্রকাশিত হয়, যেখানে দেখা যায় এক ব্যক্তি তাঁর ফোন নিয়ে চার্জারের খোঁজ করছিলেন। আপনি কিন্ত বিজ্ঞাপনটিকে এড়িয়ে যেতে পারবেন না। আজ স্মার্টফোনের ব্যবহার এত বেশি যে আমরা বাড়িতে থাকি বা অফিসে, কোথাও ঘুরতে যাই বা মিটিংয়ে, একটি চার্জার দেখতে পেলেই আমরা আমাদের ফোনে চার্জে বসিয়ে দেই। কিন্ত আপনি কি জানেন এসব চার্জার আপনার ফোনের কত ক্ষতি করে?

ফোন চার্জ করার সময় আপনি নিশ্চয়ই খেয়াল করেন না সেই চার্জারটি কত ভোল্ট বিদ্যুৎ সরবরাহ করছে। অথচ সব চার্জারের পাওয়ার সাপ্লাই আলাদা হয়। কোনটা কম ভোল্ট তো কোনটা আবার বেশী। যদি আপনি বেশী ভোল্টের চার্জার দিয়ে ফোনে চার্জ করেন তবে তা ফোনের জন্য ক্ষতিকর, অপরদিকে কম ভোল্টের চার্জার দিয়ে চার্জ করলে তা ব্যাটারির ক্ষতি করে। এই জন্য যে কোনো চার্জার ব্যবহার করার আগে সেটি সম্পর্কে জেনে নেওয়া প্রয়োজন যে চার্জারটি কত ভোল্ট বিদ্যুৎ সরবরাহ করছে এবং সেটি আপনার ফোনে আদৌ ব্যবহার করভেন কি না। এই সমস্যার সমাধান কি করে করবেন সেটাই ভাবছেন তো? চলুন আমরা আপনাকে বলে দিচ্ছি কি করে কোনো চার্জারের সব তথ্য হাতের মুঠোয় আনবেন?

আপনার মোবাইলের জন্য উপযুক্ত চার্জার নির্বাচন করবেন কিভাবে?

আপনার স্মার্টফোনের ব্যাটারির তথ্য জানার জন্য আপনাকে “এম্পিয়ার” (Ampere) এপ্লিকেশনটি গুগল্ প্লে স্টোর থেকে ডাউনলোড করতে হবে। ডাউনলোড হয়ে গেলে সব থেকে আগে আপনাকে আপনার ফোনের সঙ্গে দেওয়া চার্জারটি কানেক্ট করুন এবং এপ্লিকেশনটি চালু করতে হবে। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে আপনি জানতে পারবেন আপনার ফোন কত ভোল্ট দিয়ে চার্জ হচ্ছে। এর সাথেই আপনি সর্বোচ্চ এবং সর্বনিম্ন ভোল্টের পরিমাণ, ব্যাটারীর পরিমাণ এবং তাপমাত্রাও জানতে পারবেন। এসবের একটি স্ক্রিনশট ফোনে সেভ করে রাখুন।

পরবর্তী সময়ে আপনি যখনই অন্য কোনো চার্জার ব্যবহার করবেন সবার আগে “এম্পিয়ার” এপ্লিকেশনটি চালু করুন। কিছুক্ষনের মধ্যেই আপনি জানতে পেরে যাবেন আপনার ফোন কত ভোল্ট দিয়ে চার্জ হচ্ছে। সর্বোচ্চ এবং সর্বনিম্ন ভোল্টও জানতে পারবেন। সঙ্গে সঙ্গে আগের স্ক্রিনশটের এবং এই নতুন চার্জারের তথ্যের মধ্যে তুলনা করে দেখুন।

যদি নতুন চার্জার আপনার আসল চার্জারের থেকে সামান্য পরিমাণ কম বা বেশী ভোল্ট সরবরাহ করে তবে তা ব্যবহারের উপযোগী। কিন্ত যদি খুব কম বা খুব বেশী ভোল্ট সরবরাহ করে তবে সেই চার্জার ব্যাবহার না করাই মঙ্গল। আপনি যদি দীর্ঘদিন কম বা বেশী ভোল্ট দিয়ে আপনার ফোন চার্জ করতে থাকেন তবে আপনার ফোনের ব্যাটারি খুব তাড়াতাড়ি নষ্ট হয়ে যাবে। আপনি ব্যবহার করার সময় কোনোরূপ পার্থক্য বুঝতে পারবেন না, কিন্তু কয়েক দিনের মধ্যে আপনি তফাৎ বুঝতে পারবেন। যদি কোনো চার্জার প্রায় দ্বিগুণ ভোল্ট সরবরাহ করছে দেখেন তাহলে সাথে সাথে চার্জিং বন্ধ করে দিন।

এই এপ্লিকেশন দিয়ে আপনার ফোনে কত পরিমাণ চার্জ খরচ করছে সে সম্পর্কিত তথ্যও পেয়ে যাবেন। “ব্যাটারী মেন্টেনেন্স” অপশন থেকে আপনি ব্যাটারি অপটিমাইজও করতে পারবেন, যার ফলে ন্যূনতম চার্জ খরচ করে আপনার ফোন দীর্ঘক্ষণ চলতে পারবে। এপ্লিকেশনের ওপরে ডানদিকে অপশনের মধ্যে আপনি “সেটিংস” পাবেন। সেখানে “বেসিক সেটিংস”-এ ক্লিক করুন।

এই সেকশনে আপনি “এনহ্যান্সড মজারমেন্ট” অপশনে ক্লিক করুন। এরপর আবার এপ্লিকেশনের হোম স্ক্রীনে ফিরে আসুন। এখানে আপনি নতুন তথ্য পাবেন যে আপনার ফোন কত চার্জ ব্যবহার করছে। আপনি ফোনের ডেটা কানেকশন, ওয়াই-ফাই বন্ধ করে এবং ব্রাইটনেস কমিয়ে অনেক পরিমাণে চার্জ বাঁচাতে পারেন।

যদি আপনার ফোনের চার্জার খারাপ হয়ে যায় তবুও এই এপ্লিকেশনের সাহায্যে আপনি ফোনের উপযুক্ত চার্জার বেছে নিতে পারবেন যেটি যোগ্য মাত্রায় বিদ্যুৎ সরবরাহ করবে।

১টি মন্তব্য

  1. আমার Mi Redmi 4x মোবাইল কিছু দিন আগে আমার ফোনে একটা সমস্যা হয় তা কেওই ধরতে পারলো না
    তাই হতাস হয়ে পরলাম যে কি এমন রোগ হলো যা কেও ধরতে পারলো বা অবশেষ বাসায় চলে আসি। সমস্যা হলো অন করে চার্জ দিলে চার্জ কমে আর বন্ধকরে দিলে হয় কিন্তু খুবইআস্তে হয়।অন্য কোন আইমিন সাওয়ামির অরিজিনালচার্জার দিয়েও না তখন আমার বাসায় কিল্ক এর একটা মাল্টিফেলাগ ছিলো এটা এটার আউট পুট ছিলো 10 v Dc আর নরমাল চার্জারে ছিলো 5v DC তাই সন্দেহ হলো যে আমার ফোনে হয়তো এই মাল্টিপ্লেগ দিয়ে চার্জ দিতে গিয়ে মনে হয় এটা সেট হশে গেছে কারন ঐ মাল্টিপ্লাগ ছাড়াযত ভালো বা দামি চার্জার হোক না কেন সমস্যা সমাধান হতো না।তা আমি এইমুহুর্তে কি করো নিও দয়া করে সাহায্যের হাত বারিয়ে দিন।আমার নাম্বারটা দিলাম একটু মিসকল দিয়েন জানা থসকলে ০১৭৫৮৬০১৮১৭

Leave a Reply