টেকনো ইনফোঃ আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই। আশা করি সবাই ভালো আছেন। আজ আইফোন ব‍্যবহারকারীদের জন্য নিয়ে এলাম আইফোনের অসাধারণ কয়েকটি ফিচার যা অনেকেরই হয়তো অজানা।

আইফোন বর্তমানে বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় মোবাইল ফোন। লক্ষ লক্ষ মানুষ আইফোন ব্যবহার করা সত্ত্বেও, এই ছোট ডিভাইসটির অনেক অসাধারণ গোপন ফিচারই ব্যবহারকারীর নিকট অজানা। আমরা প্রতিদিন প্রতি সময় আইফোন এর অনেক ফিচার ব্যবহার করা সত্ত্বেও এর অনেক বিষয়ই আমরা তুলনামূলক ভাবে কম জানি।

আজকে আপনাদের সাথে আইফোনের ২৫ টি অসাধারণ ফিচার শেয়ার করব, যেগুলো জানার পর আপনি অবাক হয়ে যাবেন।

১। আপনার পাঠানো অডিও-ভিডিও মেসেজ নিজ থেকে নষ্ট হবে

আইফোনে যদি আপনি টুকিটাকি অডিও-ভিডিও মেসেজ পাঠান তা দুই মিনিট পরেই নষ্ট করতে পারবেন। এটা করার জন্য আপনাকে মেসেজ সেটিং এর উপর থেকে একদম নিচের দিকে গেলে, আপনি অডিও-ভিডিও মেসেজ এর একটি অপশন দেখতে পারবেন যা থেকে আপনি আপনার কাউকে পাঠানো অডিও ও ভিডিও মেসেজ দুই মিনিট পরেই নষ্ট করে দিতে পারবেন, আবার চাইলে আপনি কখনো নষ্ট করবেন না সেটিও করতে পারবেন।

২। আইফোনের হোম বাটনে তিনটি ক্লিক করে নির্দিষ্ট কিছু কাজ

“Accessibility Settings” এর পেজের মধ্যে একদম নিচের দিকে একটি “Accessibility Shortcut” নামে একটি অপশন দেখতে পারবেন।এখান থেকে আপনি আপনার হোম বাটন কে প্রোগ্রাম করে জুম একটিভেট করতে পারবেন,টাচের সহায়তা নিতে পারবেন, কন্ঠ দিয়ে ফোন কে কন্ট্রোল করতে পারবেন এছাড়াও আরো অনেক ফিচার ব্যবহার করতে পারবেন শুধুমাত্র হোম বাটনে ৩ টি ক্লিকের মাধ্যমে।

৩। আইফোনের ব্যাক বাটন

অন্য সকল অ্যান্ড্রয়েড ফোনের মত আইফোনের কোন নির্দিষ্ট ব্যাক বাটন নেই। তাই আপনি যদি আপনার পূর্বের কাজে ফিরতে চান তাহলে, তবে আপনাকে শুধু আপনার ফোনের স্কিনের বাম প্রান্ত হতে স্কিনের ডান প্রান্তের দিকে সোয়াইপ করতে হবে, তাহলেই আপনাকে আপনার পূর্ববর্তী পেজে নিয়ে যাবে।

৪। আনলক ছাড়া ই টেক্সটের উত্তর দিন

আপনার আইফোন আনলক না করেই সরাসরি টেক্সটের উত্তর দিতে পারবেন নোটিফিকেশন বক্স টি নিচের দিকে টেনে এবং নোটিফিকেশনের বাম দিকের উপর সোয়াইপ করলে, আপনি একটি রিপ্লাই অপশন দেখতে পারবেন এবং এটি হালকা টাচ করে আপনি টেক্সট টাইপ করে রিপ্লাই করতে পারবেন আপনার ফোন আনলক না করেই।

৫। কোন অ্যাপসে কাজ সময়ও টেক্সটের উত্তর দিতে পারবেন

আপনি যদি আইফোনের কোন অ্যাপসে কাজ করতে থাকেন, সে অবস্থায় টেক্সটের রিপ্লাই করতে পারবেন, এ জন্য স্কিনের উপর হতে নিচে টেনে নোটিফিকেশনের মধ্যে প্রবেশ করে টেক্সটের উত্তর দিতে পারবেন পূর্বের মত স্কিন আনলক না করেই।

৬। এক সাথে একাধিক অ্যাপস বন্ধ করতে পারবেন

আপনার আইফোনে এক সাথে একাধিক বন্ধ করতে পারবেন, এ জন্য আপনাকে একসাথে দুই বা তিন আঙুল দিয়ে স্কিনের উপরের দিকে সোয়াইপ করতে হবে।

৭। সিরি শিখতে পারে

আমরা সবাই সিরি সম্পর্কে জানি। সে তার নিজের ভালো সম্পর্কে অনেক বেশী। তবুও সিরি কে শেখানোর সক্ষমতা আপনার রয়েছে। আপনি সিরি কে কিভাবে শব্দ উচ্চারণ করতে হয় সেটা শেখাতে পারবেন। যখন সিরি একটি শব্দ কে ভুল উচ্চারণ করবে তখন আপনি শুধু বলবেন,” তুমি যেভাবে উচ্চারণ করেছ সেটা এ রকম নয় এবং তখন সিরি আপনাকে বিকল্প আরো কিছু শোনাবে। তখন আপনি সঠিক উচ্চারণ টি নির্ধারণ করে দিতে পারবেন এবং সিরি সেটি মনে রাখবে। আপনাকে এটা নিশ্চিত করতে হবে যে আপনি তার উচ্চারণপ্রণালী মেনে চলছেন, যাতে করে সে বুঝতে পারে আপনি কোন শব্দ টি বলছেন।

৮। আইফোনের সিরিকে বুদ্ধিমান ভাবে ব্যবহার

সিরি সত্যিকার ভাবে সুন্দর কিছু প্রয়োজনীয় কাজ করতে পারে যা আমরা ভাবতে পারি নাই। ধরুণ আপনি বিছানায় শুয়ে আছেন এবং ফোনে এলার্ম সেট করার জন্য উঠতে মন চাচ্ছে না,সিরি শুধু এটা করতে বলেন,সে করে দিবে। সিরি আরো বেশী প্রয়োজনীয়, যত টা তাকে বলা হয়। তার আরেক টি কাজ করতে পারে, সেটা হচ্ছে সে আপনার মেইল পড়তে পারে। এটা খুব কাজে দেয় যদি আপনি ড্রাইভিং করছেন অথবা অন্য কোন কাজে ব্যস্ত রয়েছেন। আপনি শুধু তাকে এভাবে বলবেন যে,” আমার শেষ ই-মেইল টি পড়ুন।” আপনি এমন কি তাকে সুনির্দিষ্ট ব্যক্তির পাঠানো বার্তাও পড়তে বলতে পারবের এবং সে অনুসন্ধান করে সেটি জোরে জোরে পড়ে শুনাবে।
আবার ধরুন আপনি মাত্র ই কোন মেসেজ বা ই -মেইল পেয়েছেন কিন্তু এই মূহুর্তে আপনি সেটি পড়তে পারছেন না। আপনি সিরি কে পরবর্তী সময়ে এটা মনে করিয়ে দিতে বলতে পারেন। আবার নোটিফিকেশন আসার সাথে সাথে সিরি কে বলতে পারেন এটি পরে শুনে পড়াতে। এটি মেসেজ,ই-মেইল, নোটস,সাফারি ইত্যাদিতে কাজ করবে যতদিন আইফোন ৯ আইওএস৯ চলতে থাকাকালীন সময় পর্যন্ত।

৯। সিরির জেন্ডার পরিবর্তন

সিরির একই কন্ঠ বার বার শুনতে বিরক্ত হচ্ছেন? সেটিং এ গিয়ে জেনারেল নির্ণয় করুন তারপর সিরি নির্ণয় করে একদম নিচে গেলে “ভয়েস জেন্ডার ” দেখতে পারবেন। এখান থেকে আপনি সিরির কন্ঠ ছেলের মানুষের কন্ঠ বানাতে পারবেন।

১০। হাত দিয়ে না ধরে সিরি ব্যবহার করুন

সিরি কে চালু করার জন্য আপনাকে সব সময় ফোনের হোম বাটন চেপে ধরে রাখতে হবে না। আপনার কাছে যদি নতুন আইফোন ৬এস থাকে, তাহলে অ্যাপল’স ভার্চুয়াল এ্যাসিসট্যান্ট চালু করার জন্য শুধু বলুন “Hey Siri.” আইফোন ৬এস চেয়ে পুরাতন ফোনে এই ফিচার টি ব্যবহার করতে হলে আউটলেট পাওয়ারে প্লাগড ইন করাতে হবে। শুধু সেটিং এর উপর থেকে জেনারেলে গিয়ে সিরি সিলেক্ট করে “Enable Hey Siri ” First চালু করতে হবে।

১১। মাথার নাড়িয়ে আইফোন নিয়ন্ত্রন করুন

এই ফিচার টি “Accessibility” সেকশনে রয়েছে। সেটিং এ গিয়ে General এ যেতে হবে তারপর Accessibility তে গিয়ে নিচের দিকে স্ক্রল করে “Interaction” এ গিয়ে “Switch Controls” চাপার পর, “Switches ” চাপতে হবে এবং “Add New Switch” সিলেক্ট করে “Camera” সিলেক্ট করে “Left Head Movement” অথবা “Right Head Movement” পছন্দ করতে হবে। তারপর “System” এর মাধ্যমে একটি এ্যাকশন রেকর্ড করতে হবে যেটা মূলত আপনাকে বলবে আপনার মাথার নাড়া-চাড়ার মাধ্যমে কোন কাজটি করতে, সেটি ই করবে। যদি আপনি সিরি পছন্দ করে তবে প্রত্যেকবার আপনি যদি বামে বা ডানে নাড়া-চাড়া করেন তাহলে আপনা-আপনি সিরি চালু হবে

১২। প্রত্যেকটি ফটো দেখুন যারা আপনাকে পাঠিয়েছে

যারা আপনাকে ফটো এবং ভিডিও পাঠিয়েছে সেটা দেখার একটি সহজ পদ্ধতি রয়েছে। এর জন্য মেসেজ থ্রেড টি মেসেজ অ্যাপে ওপেন করুন এবং উপরের ডান দিকের কর্ণারের “Details” বাটন টি চাপুন, তাহলেই দেখতে পারবেন।

১৩। ব্যাটারী সেভ করুন ফোন কে গ্রেস্কেল মুডে রেখে

আপনার আইফোনে যদি ব্যাটারীর চার্জ কম থাকে এবং আপনার বেসিক কার্যকারিতা পেতে চান আপনার আইফোন থেকে, সে ক্ষেত্রে গ্রেস্কেল মুড ব্যবহারের চেষ্টা করুন ফোনের পাওয়ার সেভ করার জন্য। এটার জন্য সেটিং এর উপর হতে “General ” ঠিক করে “Accessibility ” সিলেক্ট করে “Grayscale” চাপুন।

১৪। লক স্কিন হতে সরাসরি স্বাস্থ্য বিষয়ক তথ্যে প্রবেশ করুন

যদি আপনি আইএসও এস৮ এর মেডিকেল অ্যাপসে মেডিকেল আইডি তৈরি করে থাকেন তাহলে আপনি সরাসরি মেডিকেল তথ্যসমূহে স্কিন আনলক না করেই প্রবেশ করতে পারেন। এটি করার জন্য “Emergency ” বাটনে চাপ দিন এবং এটি কি প্যাডের সাহায্যে গোপন নাম্বার দিতে প্রবেশ করতে বলবে, গোপন নাম্বার প্রবেশ করানোর পর আপনি নিচের বাম দিকের কর্ণারে মেডিকেল আইডি বাটন দেখতে পাবেন।

১৫। ই-মেইলে একসাথে অনেক কাজ

যদি আপনি কোন ই-মেইলের মধ্যে থাকেন তাহলে আপনাকে কেটে দিয়ে মেইল ইনবক্সে আসতে হবে না এবং নতুন মেসেজ ব্রাইজ করতে হবে না। ধরুন আপনি ই-মেইল লিখছেন, সাধারণ ভাবে মেসেজের উপর চাপ দিন যেখানে বলা আছে “New Message” অথবা “Subject” এবং এটি টেনে স্কিনের নিচে নিয়ে আসুন। এটি মেসেজ গুলো নিচের দিকে ঠেলে দিবে যার ফলে আপনি অন্য মেইল গুলো দেখতে পারবেন। আবার যখন আপনি ফিরে যেতে চান তখন ই-মেইলে চাপ দিয়ে লিখতে থাকুন।

১৬। মেসেজ মিউট করুন

আপনি আপনার মেসেজিং নোটিফিকেশন বন্ধ করতে পারবেন আলাদা আলাদা “Contacts” এবং ” Conversation.”
শুধু মেসেজিং থ্রেডের উপরে গিয়ে “Do Not Distrub” সুইচ চাপুন।

১৭। ফোনের বাইরের নাস্বারের পরিচয় জানুন

আইএসও ৯ এর সাথে অ্যাপল একটি নতুন ফিচার এনেছে, যার মাধ্যমে অচেনা নাম্বার হতে কল করা ব্যক্তির সম্ভাব্য নাম দেখায়।
আপনি যদি অচেনা কারও থেকে ফোন পান, তখন আপনাকে একটি ই-মেইল করা হয় এবং ঐ ব্যক্তির ই-মেইল টি ঐ ছেলে বা মেয়ের নাম্বারের সাথে সংযুক্ত আছে।

১৮। বন্ধুর সাথে বর্তমান অবস্থান শেয়ার করুন

যদি আপনি কোথায় আছেন সেটা ব্যাখ্যা দিতো বা বলতে অপছন্দ করেন। তাহলে আপনি আপনার অবস্থান মেসেজের মাধ্যমে অন্য জনের কাছে পাঠাতে পারেন। এর জন্য শুধু মেসেজ থ্রেড এর উপরের ডান কর্ণার হতে “Details” বাটন চেপে “Send My Location” সিলেক্ট করুন।

১৯। আপনি কোথায় যাচ্ছেন বন্ধুদের জানান

আপনি যদি চান আপনার বন্ধুরা বা পরিবারের সদস্যরা আপনাকে অনুসরণ করুক আপনি কোথায় যাচ্ছেন, তাহলে আপনি একই রকম কাজ করবেন পূর্ববর্তী ধাপে যা করা হয়েছে শুধু মাত্র “Send My Location ” এর পরিবর্তে “Share My Location” সিলেক্ট করুন। আপনি এটা ১ ঘন্টার জন্য অথবা সারা দিনের জন্য অথবা অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য সেট করতে পারেন

২০। সিরি কি কিছু পড়তে পারে?

আপনি চাইলে সিরি কে ওয়েব সাইটের আর্টিকেল,বই,টেক্সট মেসেজ পড়ার জন্য আইফোনের অন্যতম কম জানা ফিচার “Accessibility ” এর মাধ্যমে। সেটিং এর উপর হতে General” >Accessibility>Speech সেট করুন।
এরপর “Speek Screen” এবং ” Speek Selection” চালু করুন। এখন আপনি যখন দুই আঙুল দিয়ে স্কিন উপর হতে নিচের দিকে সোয়াইপ করবেন তখন সিরি খুজে বের করবে কি লেখা রয়েছে স্কিনের উপর

২১। সহজ ভাবে আইফোন কে বড় স্কিনে পরিবর্তন করুন

আপনি যদি আইফোন ৬ প্লাস অথবা আইফোন ৬এস প্লাস এক হাতে ব্যবহার করার সময় যদি হোম বাটনে দুই বার চাপ দেন তাহলে কনটেন্ট নিচের দিকে সরে যাবে স্কিনের নিচ পর্যন্ত।
অ্যাপল এটা কে “Reachability Mode” বলে।
হোম বাটন চাপার সময় মনে রাখতে যেন এটি আবার চাপা যাবে নতুবা এটি অ্যাপস সুইচার চালু করবে।

২২। হেডফোন লাগিয়ে মিউজিক অ্যাপ চালু করুন

যদি আপনি প্রতিদিন সকালে একই সময়ে গান শোনের তাহলে আইফোন সেটা অটোমেটিক ভাবে জেনে যায় তাই আপনি হেডফোন লাগানোর সাথে সাথে মিউজিক অ্যাপ চালু হয়ে যায়।
এটি আইএসও৯ এর সাথে নতুন একটি ফিচার।

২৩। সেটিং মেনুতে যে কোন কিছু সার্চ করুন

আপনাকে এখন আর বেশী কষ্ট করে আপনি যা চাচ্ছেন সেটা আইফোনের সেটিং মেনুতে খুজতে হবে না। যদি আপনার ফোন আইএসও ৯ হয় তাহলে আপনি লক্ষ্য করবেন সার্চ মেনু উপরে একটি সার্চ বার রয়েছে। এখান হতে যেকোন সেটিং এ দ্রুত যেতে সহায়তা করে।

২৪। আপনার আইফোন একটা ঝাঁকি দিয়ে যে কোন কিছু মুছুন

যদি আপনি ই-মেইল লেখার সময় কোন ভুল করেন, ফটো এডিটের সময় কোন ভুল করেন অথবা টেক্সট লেখার সময় ভুল করে তাহলে হালকা ভাবে আপনার ফোন ঝাঁকি দিন এবং এটি সহজে এডিট করুন পুনরায়। এটি ইটচ-এ-স্কেচ অথবা কম্পিউটারে Control +Z এর মত। এর মাধ্যমে আপনি সর্বশেষ যে কাজটি করেছেন সেটি মুছে যাবে।

২৫। ভিউ টাইম-স্ট্যাম্প

এটি সঠিক ভাবে বলতে পারে কখন আপনি কোন মেসেজ পেয়েছেন। এটি খুবই দরকারী একটি ফিচার কারন এর মাধ্যমে সুন্দর ভাবে জানা যায় কত আগে কেউ আপনাকে মেসেজ দিয়েছে। এতে প্রবেশ করার জন্য যে কোন কনর্ভারসেশনে বাম দিকে সোয়াইপ করতে হবে।তখন আপনি দেখতে পারবেন ঠিক কখন টেক্সট টি পাঠিয়েছে এবং কখন ডেলিভারি হয়েছে।

লিখেছেনঃ জাহিদ হাসান মিঠু

Leave a Reply