চুয়াডাঙ্গায় ছয় ব্যাংকারের করোনা শনাক্ত

0

চুয়াডাঙ্গায় গত ২৪ ঘন্টায় ৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ছয়জনই ব্যাংকার। এ নিয়ে জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ২০৩ জনে দাঁড়িয়েছে। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১১০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২ জনের।

বুধবার (২৪ জুন) রাত সাড়ে ৮টার দিকে জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

জানা গেছে, কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পিসিআর ল্যাব থেকে প্রাপ্ত ৩৩ জনের নমুনায় তাদের করোনা ধরা পড়ে। আক্রান্ত সাতজনের মধ্যে জীবননগরের ইসলামী ব্যাংকের কর্মকর্তা। অপরজন একই উপজেলার মনোহরপুর গ্রামের এক নারী। নতুন আক্রান্তরা হোম ও প্রাতিষ্ঠানিক আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলায় দিন দিন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। গত দু’দিনের ব্যবধানে জীবননগর ইসলামী ব্যাংকের ১১ কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ ১৩ ব্যক্তির শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। সম্প্রতি ইসলামী ব্যাংকের সোলায়মান নামের এক কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার ঘটনায় পরীক্ষার পর প্রায় প্রতিদিনই ব্যাংক কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পাশাপাশি সাধারণ মানুষ আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এতে এলাকাবাসীর মাঝে আতঙ্ক বেড়ে গেছে। এ পরিস্থিতিতে উপজেলা প্রশাসন আক্রান্ত ব্যক্তিদের বসবাস এলাকা রেডজোন হিাবে ঘোষণার মধ্যদিয়ে লকডাউন করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা জুলিয়েট পারউইন জানান, ‘ইসলামী ব্যাংকের নতুন করে যে ছয়জন কর্মকর্তা-কর্মচারী করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন, তাদের কারও উপসর্গ ছিল না। এর বাইরে একজন সাংবাদিকের স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তার করোনার উপসর্গ ছিল।’

তিনি বলেন, ‘এর আগে ইসলামী ব্যাংক জীবননগর শাখার একজন কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান। তখন পাঁচজন কর্মকর্তা-কর্মচারীও করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হন। যাদের মধ্যে চারজন বর্তমানে হোম আইসোলেশনে এবং একজন সদর হাসপাতালের আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।’

Leave a Reply