রূপালী ব্যাংকের নগদ লভ্যাংশে বাংলাদেশ ব্যাংকের অসম্মতি

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত রূপালী ব্যাংক লিমিটেডের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২১ হিসাব বছরের জন্য সুপারিশ করা ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ বিতরণে অসম্মতি জানিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। ফলে পুনরায় আগের সিদ্ধান্ত অনুসারে ২ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ অনুমোদনের জন্য বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) কাছে আবেদন জানিয়েছে রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকটি। গতকাল ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) মাধ্যমে এ তথ্য জানিয়েছে রূপালী ব্যাংক।

মূলত রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকটির পরিচালনা পর্ষদের সভায় ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২১ হিসাব বছরের জন্য ২ শতাংশ স্টক লভ্যাংশের সুপারিশ করা হয়। পরে নিয়ম অনুসারে সে লভ্যাংশ অনুমোদনের জন্য বিএসইসির কাছে আবেদন জানায় ব্যাংকটি। তবে নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি এ লভ্যাংশ অনুমোদনের আগে ব্যাংকটির নগদ লভ্যাংশ না দেয়ার যৌক্তিক কারণ জানতে চায়। এ বিষয়ে যৌক্তিক কারণ দেখাতে না পারায় ঘোষিত স্টক লভ্যাংশে অসম্মতি জানায় বিএসইসি। পরে ব্যাংকটির বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) ২ শতাংশ স্টক লভ্যাংশের পরিবর্তে ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ বিতরণের অনুমোদন দেয় শেয়ারহোল্ডাররা। এ লভ্যাংশ বিতরণে বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুমোদন চাইলে তা প্রত্যাখ্যান করে কেন্দ্রীয় ব্যাংকটি। ফলে রূপালী ব্যাংক ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশের পরিবর্তে ২ শতাংশ স্টক লভ্যাংশে অনুমোদন চেয়ে পুনরায় বিএসইসির কাছে আবেদন জানিয়েছে।

১৯৮৬ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হওয়ার পর রাষ্ট্রায়ত্ত রূপালী ব্যাংক তাদের শেয়ারহোল্ডারদের কোনো নগদ লভ্যাংশ দেয়নি। প্রথমবারের মতো ব্যাংকটির এজিএমে ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ অনুমোদন পাওয়ায় ব্যাংকটিকে লেনদেনের জন্য ‘বি’ ক্যাটাগরির পরিবর্তে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে পাঠানো হয়েছে। চলতি বছরের ১০ আগস্ট থেকে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে লেনদেন শুরু করেছে ব্যাংকটি।

টেকনো ইনফো বিডি‘র প্রিয় পাঠক: প্রযুক্তি, ব্যাংকিং ও চাকরির গুরুত্বপূর্ণ খবরের আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ টেকনো ইনফো বিডি তে লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন।

আরও দেখুন: ব্যাংকে ঋণ অবলোপন ৬০ হাজার কোটি টাকা ছাড়াল

৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২১ হিসাব বছরে ব্যাংকটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ১ টাকা ১০ পয়সা। আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল ৪৫ পয়সা। সে হিসেবে আলোচ্য সময়ে ব্যাংকটির ইপিএস বেড়েছে ৬৫ পয়সা বা ১৪৪ দশমিক ৪৪ শতাংশ। ৩১ ডিসেম্বর ২০২১ শেষে ব্যাংকটির শেয়ারপ্রতি সমন্বিত নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৩৭ টাকা ৮৮ পয়সা। আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল ৪০ টাকা ৯ পয়সা।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button