ডলারে অতিরিক্ত মুনাফা কৃষি খাতে ব্যয়ের নির্দেশ

দেশে বেশ কিছুদিন ধরে মার্কিন ডলারের সংকট রয়েছে। এ সুযোগে ১২টি ব্যাংক ডলার কেনা-বেচায় ৫০০ কোটি টাকার বেশি অতিরিক্ত মুনাফা করে। এসব টাকা কৃষি খাতে ব্যয় করা নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

টেকনো ইনফো বিডি‘র প্রিয় পাঠক: প্রযুক্তি, ব্যাংকিং ও চাকরির গুরুত্বপূর্ণ খবরের আপডেট পেতে আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ টেকনো ইনফো বিডি তে লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন।

সম্প্রতি ব্যাংকগুলোর ব্যবস্থাপনা পরিচালককে (এমডি) চিঠি দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে আর্থিক খাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।

জানা যায়, অতিরিক্ত মুনাফা করা ব্যাংকগুলো হলো- বেসরকারি খাতের ব্র্যাক ব্যাংক, সিটি ব্যাংক, ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংক, প্রাইম ব্যাংক, সাউথইস্ট ব্যাংক, এনসিসি ব্যাংক, মার্কেন্টাইল ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া, ইউসিবি, স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংক, এইচএসবিসি ব্যাংক এবং ঢাকা ব্যাংক।

সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিদর্শনে ডলার বাজারে অস্থিরতার মধ্যে এসব ব্যাংকের অতিরিক্ত মুনাফা করার তথ্য উঠে আসে। ফলে গত ৮ আগস্ট ডাচ্‌-বাংলা ব্যাংক, ব্র্যাক ব্যাংক, দি সিটি, সাউথইস্ট ব্যাংক, স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ও প্রাইম ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের প্রধানকে দায়িত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। এরপর ১৮ আগস্ট এমডিদের কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়।

আরও দেখুন:
ডলার বাজার অস্থিতিশীলঃ ছয় ব্যাংকের এমডিকে কারণ দর্শানোর নোটিশ

এরপরে গত ৭ সেপ্টেম্বর বাকি ছয় ব্যাংককে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। এর মধ্যে কঠোর অবস্থান থেকে পিছু হটে আর্থিক খাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি। এরই মধ্যে ৬টি ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের প্রধান নিজ নিজ কাজে ফিরেছেন।

সম্প্রতি ব্যাংকগুলোকে পাঠানো চিঠিতে বলা হয়, বৈদেশিক বাণিজ্য লেনদেন থেকে অর্জিত মুনাফার অর্ধেক বাবদ সিএসআর তহবিলে সংরক্ষিত টাকার ওপর বিধি অনুযায়ী সরকারের আয়কর পরিশোধ করতে হবে। বাকি টাকা চারটি খাতে ব্যয় করতে হবে। খাতগুলোর মধ্যে রয়েছে- কৃষি খাতের উৎপাদন বৃদ্ধি, কৃষি যন্ত্রপাতি কেনা, কৃষিজাত পণ্য প্রক্রিয়াকরণ শিল্প এবং কৃষি খাতের উন্নয়নে নতুন পদ্ধতি উদ্ভাবন ও গুণগত মানসম্পন্ন উৎপাদন বাড়ানোর জন্য গবেষণা কাজে ব্যবহার করতে হবে।

এতে আরও বলা হয়, এ টাকা আগামী এক বছরের মধ্যে উল্লেখিত চারটির প্রত্যেক খাতে ব্যাংকের নিজ বিবেচনায় ব্যবহার করতে হবে। কোনোভাবেই একটি বা দুটি খাতে সম্পূর্ণ অর্থ ব্যবহার করা যাবে না। টাকা ব্যবহারের অগ্রগতি প্রতি ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগে (ডিভিশন-২) পাঠাতে হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button