বিশ্বের প্রথম ফোল্ডেবেল স্মার্টফোন রয়েল ফ্লেক্সিপাই!!

0
31

টিআইবিঃ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসে চলছে ২০১৯ সালের কনজিউমার ইলেকট্রনিক শো (সিইএস ২০১৯)। সারা বিশ্বের নামীদামী সব টেক কোম্পানিগুলি তাদের সেরা প্রোডাক্ট নিয়ে হাজির হয়েছে এই টেক শোতে। অনেক ভবিষ্যতের টেকনোলজি প্রথমার দেখা গিয়েছে এই বছরের সিইএস এ। ইতিমধ্যেই স্যামসাং তাদের প্রথম ফোল্ডেবেল স্মার্টফোন সামনে এনেছে। এবার রয়েল নামে এক কোম্পানি নিজেদের ফোল্ডেবেল স্মার্টফোন নিয়ে হাজির হয়েছে বিশ্বের এক নম্বর টেক শোতে।

২০১৮ সালের শেষ দিকে বিশ্বের প্রথম ফোল্ডেবল ফ্লেক্সিপাই ফোন উন্মোচন করেছিল চীনের এই কোম্পানিটি। গতকাল কনজিউমার ইলেকট্রনিকস শো (সিইএস) ২০১৯-এর উদ্বোধনী দিনে ডিভাইসটির বৈশ্বিক সরবরাহ শুরুর ঘোষণা দেয়া হয়।

আরোও পড়ুন:
>> ক্যামেরায় নতুন প্রযুক্তি নিয়ে আসছে আইফোন ১১!
>> ই-সিম কি? ই-সিম কিভাবে কাজ করে এবং এর সুবিধা সমূহ!

১ হাজার ৩১৮ ডলার মূল্যের ফ্লেক্সিপাই ফোল্ডেবল স্মার্টফোনটি গত বছর উন্মোচন হলেও পরখ করার সুযোগ ছিল না। সিইএসে সে সুযোগ পাচ্ছেন ক্রেতা-দর্শনার্থীরা।

ফ্লেক্সিপাই ফোল্ডেবল ফোনে ১৯২০x১৪৪০ পিক্সেল রেজল্যুশনের ৭ দশমিক ৮ ইঞ্চির অ্যামোলেড ডিসপ্লে ব্যবহার করা হয়েছে। ডিভাইসটির ফোল্ড খুলে ট্যাবলেট ডিভাইস হিসেবে ব্যবহার করা যাবে। কোম্পানি জানিয়েছে মোট ২০০,০০০ বার খোলা বন্ধ করা যাবে এই ডিভাইস। ফ্লেক্সিপাই এর ডিসপ্লে বেশ উজ্জ্বল ও রঙিন। তবে ট্যাবলেট মোডে এই ডিসপ্লে পুরোপুরি ফ্ল্যাট হয় না।

রয়েল ফ্লেক্সিপাই তে ১৬ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স ও ২০ মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্সের ডুয়াল রিয়ার ক্যামেরা আছে। সাথে থাকছে ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট, ডুয়াল সিম স্লট, পাওয়ার বাটন, ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সার আর ৪,০০০ mAh ব্যাটারি।

ফ্লেক্সিপাই ফোল্ডেবেল স্মার্টফোনে থাকছে স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ প্রসেসর। ৬ জিবি/৮ জিবি র‌্যাম এবং ১২৮ জিবি/২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভেরিয়েন্টে পাওয়া যাবে এই ডিভাইস। ডিভাইসটি অ্যান্ড্রয়েড পাই ৯.০ অপারেটিং সিস্টেমে চলবে।

Leave a Reply