টেকনো ইনফোঃ স্মার্টফোনের আগমনে আগের সেই ফ্লিপ ফোনগুলো যেন হারাতে বসেছে। কিংবা পাওয়া গেলেও সেগুলো তো সেই আগের ফিচার ফোন। এসব ফোন দিয়ে কি আর আধুনিক কাজ চলে? আবার অতি প্রিয় সেই ফ্লিপ ফোনগুলোকে অনেকে দারুণ মিস করেন। তাই নস্টালজিয়ায় ভাসাতে নতুন উদ্যোগ নিয়েছে Samsung। এবার তারা পুরনো ফ্লিপ ফোন ফিরিয়ে আনছে। তাও আবার অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমে। সঙ্গে থাকছে হাইকোয়্যালিটির টেকনোলজি। আর কী চাই এবার!

ইতিমধ্যে চীনের বাজারে W2018 মডেলের ফোনের কথা জানানো হয়েছে। এ কাজে স্যামসাং জোট বেঁধেছে চীনের চায়না টেলিকমের সঙ্গে। মূলত গত বছর বাজারে আনা W2017 এর পরিবর্তিত ভার্সন আনছে তারা। এ ফোনে ডুয়াল ডিসপ্লে ছাড়াও ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানারও রয়েছে।

এই ফোনে থাকছে 4.2 ইঞ্চির অ্যামোলেড ডিসপ্লে হবে ফুল-এইচডি। ভেতরে শক্তিশালী কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৩৫ চিপসেট আর 6GB র‍্যামও দেওয়া হবে। ইন্টারনাল 256GB স্টোরেজ থাকবে। মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে আরো 256GB স্টোরেজ যোগ করা যাবে। অ্যান্ড্রয়েড 7.1.1 নুগেটে চলবে ফোনটি।

Samsung W2018 ফোনের পেছনে দেওয়া আছে ১২ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা। যোগ হয়েছে এফ/১.৫ অ্যাপারচার। ঝাঁকুনির মধ্যেও পরিষ্কার ছবি তুলতে অ্যাড হয়েছে অপটিক্যার ইমেজ স্ট্যাবিলাইজেশন (ওআইএস) প্রযুক্তি। সামনে এফ/১.৯ লেন্সসহ আছে ৫ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা। পেছনের ক্যামেরায় 4K ভিডিও করা সম্ভব। W 2018 মডেলে ন্যানো সিম কার্ডের দুটো স্লট রয়েছে। ব্যাটারি 2300Mah। আছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার। এখন পর্যন্ত বিশ্বের অন্যান্য বাজারে ফোনটি কবে আসবে আর দামই বা কত হবে সে সম্পর্কে কোনো ধারণা পাওয়া যায়নি।

Facebook Comments